আড়াই বছর পর একটি শর্তে টি-টোয়েন্টিতে কিপিংয়ে ফিরছেন মুশফিক!

আড়াই বছর পর টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে পুরনো দায়িত্বে ফিরতে যাচ্ছেন মুশফিকুর রহিম। আসন্ন এশিয়া কাপে উইকেটকিপারের ভূমিকায় দেখা যেতে পারে তাকে। যদিও বিষয়টি নিয়ে এই ব্যাটার

এখনও টিম ম্যানেজমেন্ট সিদ্ধান্ত জানাননি। কিপিংয়ের সঙ্গে আসন্ন এশিয়া কাপে ওপেনিং ব্যাটারের দায়িত্বও পালন করতে পারেন মুশফিক। তবে দুটি বিষয়েরই সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হবে শনিবার নাগাদ।

শুক্রবার রাসেল ডমিঙ্গো বাংলাদেশে এসে বৈঠকের পর চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানা যাবে। বিশ্বস্ত একটি সূত্র ক্রিকফ্রেঞ্জিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। ২০২০ সালের ১১ মার্চ মিরপুরে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে

টি-টোয়েন্টি সর্বশেষ উইকেটকিপার ব্যাটার হিসেবে খেলেছিলেন মুশফিক। এরপর মাঝে করোনা বিরতি কাটিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরলেও ২০২১ সালের নিউজিল্যান্ড সিরিজে শুরু হয় মুশফিকের

কিপিং ইস্যুতে ধোঁয়াশা। সিরিজ শুরুর আগে রাসেল ডমিঙ্গো জানিয়েছিলেন, সিরিজের প্রথম দুই ম্যাচে নুরুল হাসান সোহান কিপিং করবেন। এবং পরের দুই ম্যাচে উইকেটের পেছনে থাকবেন মুশফিক।

তবে তৃতীয় টি-টোয়েন্টিতে মুশফিক এই দায়িত্বে আসার কথা থাকলেও সেদিন ‍উইকেটের পেছনে দেখা যায় সোহানকে। সে সময় ডমিঙ্গ বলেছিলেন, ‘এখানে কিছুটা পরিবর্তন এসেছে। প্রাথমিকভাবে

সিরিজ শুরুর আগে মুশফিকের সঙ্গে আমি কথা বলেছিলাম, দ্বিতীয় ম্যাচের পর ওর কিপিং করার কথা ছিল। কিন্তু মুশফিক আমাকে বলেছে, সে টি-টোয়েন্টিতে আর কিপিং করতে চায় না।’ এদিকে

এশিয়া কাপের জন্য ক্রিকেটাররা ব্যক্তিগত অনুশীলন শুরু করলেও এখন পর্যন্ত কিপিং অনুশীলন করতে দেখা যায়নি মুশফিককে। তবে ব্যাটিং অনুশীলনে ভিন্নরুপে দেখা গিয়েছে তাকে।

প্রতিদিনই পাওয়ার হিটিং অনুশীলনের সঙ্গে আনঅর্থডক্স কিছু শটসও খেলতে দেখা গিয়েছে এই ব্যাটারকে। স্কুপ, রিভার্স স্কুপ ও লং শট খেলার সঙ্গে একবার হেলিকপ্টার শটও খেলার চেষ্টা করেছেন

তিনি। যদিও তাতে সফল হননি। এশিয়ার শ্রেষ্ঠত্বের লড়াই শুরুর আগে মুশফিকের এমন ব্যাটিং মনোভাব প্রশ্ন জাগাতেই পারে যে আসলেই কি এশিয়া কাপে ওপেন করতে যাচ্ছেন তিনি?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *