ইতালিতে সেই কুকীর্তির জন্য চরম শা’স্তিতে বিশ্ব ফুটবলে নিষেধাজ্ঞার মুখে রোনাল্ডো

আর্থিক বেনিয়মের জন্য কয়েকদিন আগেই সিরি-আ’তে জুভেন্তাসের ১৫ পয়েন্ট কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। ইতালিয়ান ফুটবল ফেডারেশনে এক আবেদনের শুনানিতে জুভেন্তাসকে বড়সড়

শাস্তি দিয়েছে দেশটির ফুটবল সংস্থা। এখন স্পোর্টস বাইবেল-এর প্রতিবেদনে ইতালিয়ান সাংবাদিক পাওলো জিলানিকে উদ্ধৃত করে বলা হচ্ছে, যে সময়ের সেই আর্থিক বেনিয়ম ঘটেছিল, সেই

সময়ে তুরিনের এক ক্লাবটির হয়ে যাঁরা খেলেছিলেন, তাঁদের সকলের ওপরেই নিষেধাজ্ঞার শাস্তি নেমে আসতে পারে। সেই রিপোর্টে বলা হচ্ছে, ফুটবলাররা যদি নিজেদের চুক্তিকৃত বেতনের

থেকে কম অর্থ নিয়ে থাকেন, তাহলে তাঁদের ৩০ দিনের জন্য সাসপেন্ড হতে হবে। সেই ফুটবলাররা এখন ইতালির সিরি-আ বা জুভেন্টাসে না থাকলেও সেই শাস্তি কার্যকর হবে। নিষেধাজ্ঞার মুখে

পড়তে চলা তারকা ফুটবলারদের মধ্যে যেমন রয়েছেন রোনাল্ডো, তেমন টটেনহ্যামের দেজান কুলুস্লেভস্কি, রদ্রিগো বেনতাকুর। সাংবাদিক জিলানির বক্তব্য উদ্ধৃত করেছে স্পোর্টস বাইবেল।

যেখানে বলা হচ্ছে, যাঁরা এই ঘটনায় জড়িত ছিলেন সকলকেই গোটা ঘটনা স্বীকার করে নিয়েছেন। দুজন ফুটবলার ম্যাথিয়াস দে লিট, মাত্তিয়া দে স্কিগিলো ম্যাজিস্ট্রেটের কাছে হোয়াটসআপ চ্যাটের

এক অংশ জমা দিয়েছেন। যেখানে জর্জিও চিয়েলিনি সকলকে এই দুর্নীতির বিষয়ে অবহিত করেছেন। তিনি আবার সতীর্থদের সাংবাদিকদের কাছে এই বিষয়ে মুখ না খোলার নির্দেশ দিয়েছেন। ভুয়ো

আর্থিক প্রতারণার কারণে জুভেন্তাসের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট আন্দ্রেয়া আগনেল্লিকে দু বছরের জন্য ফুটবল সংক্রান্ত সমস্ত বিষয় থেকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। তুরিনের পাবলিক প্রসিকিউটরের তরফে

তদন্তের পর জুভেন্তাসের প্রাক্তন বোর্ডের সমস্ত সদস্যদের শাস্তি দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও জুভেন্তাসের সেই সময়ের স্পোর্টস ডিরেক্টর ফাবিও পারাতিসির ওপরেও ৩০ মাসের নির্বাসন জারি

করা হয়েছে। তিনি বর্তমানে টটেনহ্যামের ম্যানেজিং ডিরেক্টর। যদিও জুভেন্তাসের পক্ষে বলা হয়েছে, তাঁরা ইতালিয়ান অলিম্পিক কমিটির কাছে এই নিষেধাজ্ঞার রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে আবেদন

করবে। ঘটনাচক্রে এমনিতেই কিছুদিন আগে নির্বাসন কাটিয়ে সৌদি প্রো লিগে অভিষেক ঘটিয়েছেন মহাতারকা। ম্যাঞ্চেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে খেলার সময় এভার্টন ম্যাচে গুডিসন পার্কে এক সমর্থককে

হেনস্তা করার জন্য রোনাল্ডোর ওপর নিষেধাজ্ঞার শাস্তি চাপিয়েছিল এফএ। সেই শাস্তি সৌদির লিগেও বলবৎ ছিল। এবার ফের নয়া শাস্তির মুখে পড়তে হতে পারে তারকাকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *