এবার অনুশীলনে রশিদকে পাশে রেখেই খোঁচা মারলেন বিজয়-নাইমরা

২৭ আগস্ট থেকে শুরু হবে আশিয়া কাপ। আগামী ৩০ আগস্ট আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে এশিয়া কাপের মিশন শুরু করবে টিম টাইগার। সেই লড়াইয়ে মাঠে নামার আগে গতকাল বৃহস্পতিবার দুবাইয়ে আইসিসির একাডেমী মাঠে

প্রথমবারের মতো প্রস্তুতি সেরেছে সাকিব-মুশফিক-বিজয়রা। এদিন পাশাপাশি নেটে ব্যাটিং ঝালাই করে নিয়েছেন বাংলাদেশ ও আফগানিস্তানের ক্রিকেটাররা।টাইগার ব্যাটারদের মধ্যে মুশফিকুর রহিম ঘন্টা খানেক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের সঙ্গে ওদল-

বদল করে নেটে ব্যাটিং করেছেন। দুজনই ব্যাট হাতে বেশ সাবলীল ছিলেন। আফগানিস্তানের রশিদ খান-মুজিব উর রহমানদের সামলাতে দেশ থেকে উড়িয়ে নেয়া হয়েছে লেগ স্পিনার রিশাদ হোসেনকে।যদিও প্রথম দিনের অনুশীলনে রিশাদ

বল না করলেও ছিলেন দুই ভারতীয় লেগ স্পিনার। যাদের সামলাতে বেগ পেতে হয়েছে টাইগার ব্যাটারদের। প্রথম দিনের অনুশীলনে নিজেদের ঝালাই করে নিয়েছেন আফিফ হোসেন ধ্রুব ও পারভেজ হোসেন ইমনও। দুজনেরই প্রয়াস ছিল বড়

শটের। বেশ কিছু ডেলিভারিতে সীমানা ছাড়া করলেও। বেশ কয়েকবার টপ এজ হয়েছেন তারা। এসব থেকে এগিয়ে এসেছেন সিডন্স। দিয়েছেন বাড়তি পরামর্শ।এরপর এনামুল হক বিজয় ও নাইম শেখ যখন নেটে ব্যাট করছিলেন সাকিব আল হাসান

তখন অন্য নেট থেকে ব্যাটিং অনুশীলন শেষে বোলিংয়ে যোগ দেন। সাকিবকে দেখে বোঝার উপায় ছিল না ঘণ্টা দুয়েক আগেই তিনি বাংলা টাইগার্সের আইকন ক্রিকেটার হিসেবে যোগ দিয়েছেন আইকন রিভিল প্রোগ্রামে। সেখান থেকে দলের

সঙ্গে যোগ দিয়েছেন অনুশীলনে।সাকিবের বলে লম্বা শট হাঁকিয়ে বেশ কয়েকবার সীমানা ছাড়া করতে দেখা গেছে নাইমকে। তখন সাকিবের চোখে মুখে ছিল হতাশার ছাপ। রশিদ-মুজিবদের সামনে নিজের দুর্বলতা ঢাকতেই হয়তো বেশ কয়েকটি

ডেলিভারিতে বিজয়-নাইমদের ভড়কেও দিয়েছেন বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার।এদিন বিজয় প্রথম বল থেকেই বড় শটের অনুশীলন সেরেছেন। তবে লেগ স্পিনারদের বিপক্ষে দুর্বলতা ছিল স্পষ্ট। দলের ব্যাটারদের অনুশীলনটা সামনে থেকে

পর্যবেক্ষণ করেছেন ব্যাটিং পরামর্শক জেমি সিডন্স ও টেকনিক্যাল কনসালটেন্ট শ্রীধরন শ্রীরাম। তিনি ব্যাটারদের কাছে এগিয়ে গিয়ে বিভিন্ন পরামর্শও দিয়েছেন।ক্রিকেটারদের মাথা ঝাঁকানো দেখে বোঝা গেছে এই ভারতীয় কোচের কথা তারা

ভালোই বুঝতে পারছেন। শ্রীরামের পদবি টেকনিক্যাল কনসালটেন্ট হলেও মূলত প্রধান কোচেরই যেন দায়িত্ব পালন করছেন তিনি। প্রথম দিনের অনুশীলনে এই ভারতীয় কোচের কর্মকান্ডেই সেটা বেশ স্পষ্ট।বাংলাদেশ দল এখন ব্যাটিং বোলিং নিয়ে

অনুশীলনে ব্যস্ত তখনই বল হাতে নিজেদের পরখ করে নিয়েছেন আফগান দুই স্পিনার রশিদ খান ও মুজিব উর রহমান। তখন নেটে ব্যাট করেছেন রহমানউল্লাহ গুরবাজ ও রহমত শাহ। বিজয়-নাইমদের বড় শট যখন সীমানায় আছড়ে পড়েছে তখন ঘাড় ঘুরিয়ে সেদিকেও দেখেছেন তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *