পাকিস্তানের বোলিং তাণ্ডবে দিশেহারা ভারত

টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন পাকিস্তান অধিনায়ক বাবর আজম। তবে তার সে সিদ্ধান্তকে যেন ভুল প্রমাণের পণ করেই নেমেছিলেন রোহিত শর্মা আর লোকেশ রাহুল। শুরুর পাঁচ ওভারে রীতিমতো তাণ্ডবই বইয়ে দিয়েছেন পাকিস্তানি বোলারদের ওপর। তাতে মনে হচ্ছিল পাকিস্তানকে বড় রানের পাহাড়েই চাপা দিতে যাচ্ছে ভারত।

তবে পরিস্থিতিটা বদলে গেল পাওয়ারপ্লের শেষ ওভারে। রোহিত ফিরলেন শুরুতে। তার ছয় বল পর ফিরলেন রাহুলও। যার ফলে পাওয়ারপ্লের শেষেই ম্যাচে ফিরে এসেছে পাকিস্তান।
এশিয়া কাপের শেষ তিন ম্যাচের দুটোতেই ১৭০ এর বেশি রান করে হেরেছে আগে ব্যাট করা দল। সেই ভাবনা থেকেই হয়তো, ভারতের দুই ওপেনার পাক বোলারদের ওপর চড়াও হয়েছিলেন শুরু থেকেই। ১১, ৯, ১৪, ১২, ৮; শুরুর ৫ ওভারে এই ছিল ভারতের রান।

এরপরই পাকিস্তানকে ব্রেক থ্রু এনে দেন হারিস রউফ। ষষ্ঠ ওভারের শুরুতে তার বলে টপ এজ হয় রোহিতের। তা ধরতে আরেকটু হলেই খুশদিল শাহ আর ফখর জামানের ভয়াবহ সংঘর্ষ হয়ে যেতে পারত। সংঘর্ষ শেষমেশ হয়েছেও, তবে তা গুরুতর কিছু হয়নি। ক্যাচটাও ঠিকঠাক ধরেছেন খুশদিল। ১৬ বলে ২৮ করে ফেরেন রোহিত।

পরের ওভারের প্রথম বলে ভারত ইনিংসে আঘাত হানেন শাদাব খান। শাদাব খানকে উইকেট ছেড়ে বেরিয়ে সীমানাছাড়া করতে গিয়ে বলটা আকাশে তুলে দেন লোকেশ রাহুল। সেটা তালুবন্দি করতে সমস্যাই হয়নি লং অনে থাকা মোহাম্মদ নওয়াজের। ২০ বলে ২৮ করে ফেরেন রাহুল, ৬২ রানে দ্বিতীয় উইকেট খুইয়ে বসে ভারত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *