ভারতকে কড়া বার্তা দিয়ে, দুবাইয়ে নেমেই ছক্কার ঝড় তুললেন পাক তারকা আসিফ

সাম্প্রতি দুবাইয়ের প্রকৃতি এখন অনেক বেশি গরম। সেখানে এখন সর্বোচ্চ তাপমাত্রা বইছে। আগামী কয়েকদিন কোনো ঝড়ের পূর্বাভাস নেই দেশটিতে। তবে ২৭ আগস্ট থেকে দুবাই ও শারজাহ এলাকায় ঝড়ো ব্যাটিংয়ের খবর নিয়মিত শিরোনাম

হতে পারে ক্রিকেটের ২২ গজে।পাকিস্তানি ব্যাটসম্যান আসিফ আলি সেই ঝড়ের ভবিষ্যদ্বাণী করলেন। দিনের শুরুতে মৃদু উত্তাপের পর ব্যাট-প্যাড নিয়ে প্রথমে জালে আসেন আসিফ। দলের সঙ্গে ছিলেন একজন নিক্ষেপকারীও।মাঠের সীমানায়

চার যোদ্ধা দাঁড়িয়ে। প্রথম বল থেকেই ছক্কা মারার অনুশীলন শুরু করেন। আসিফের ফাস্ট ব্যাটিংয়ে নিরাপদ ছিল না এশিয়া কাপ কাভার করতে দুবাইয়ে আসা সাংবাদিকরা।একের পর এক বল আছড়ে পড়ছিল আসিফের দিকে তাক করা ক্যামেরার

দিকে। টানা আধা ঘণ্টা ছক্কার অনুশীলন শেষে নেটের অপরপ্রান্তে গিয়ে সতীর্থ খুশদিল শাহর ব্যাটিং দেখেছেন আসিফ।দুদিন আগেই এক সাক্ষাৎকারে আসিফ বলেছিলেন, ‘আমি যে পজিশনে ব্যাট করি, সেখানে সাধারণত ওভারে গড়ে ১০ রান করে

দরকার হয়। এজন্য বিগ–হিটিং ব্যাটিংয়ের দরকার হয় এবং প্রচুর অনুশীলন করতে হয়। আমি সাধারণত প্রতিদিন ১০০–১৫০টি ছক্কা মারার অনুশীলন করি যেন ম্যাচে ৪–৫টি মারতে পারি।’গত ২৩ আগস্ট দুবাইয়ে নেমে প্রথম দিনের অনুশীলনেই

নিজের কথার যেন হতকা-নাতে প্রমাণ দিলেন আসিফ। সবকিছু ঠিক থাকলে ২৭ আগস্ট ভারতের বিপক্ষে নিজেদের প্রথম ম্যাচেই দেখা যেতে পারে আসিফের ছক্কার ঝড়।আইসিসির একাডেমী মাঠে এদিন পাকিস্তান দলের সঙ্গে অনুশীলন করেছে আফগানিস্তানও। একই মাঠে অনুশীলন হলেও দুই ভাগ হয়ে নিজেদের পতাকা গেড়ে অনুশীলন চালিয়েছে দুই দল।

প্রায় একই সময় আইসিসির একাডেমীতে আসে পাকিস্তান ও আফগানিস্তান। সে সময় দুই দলের ক্রিকেটারদের একই সঙ্গে নামাজ আদায় করতেও দেখা গেছে। এই নামাজে ইমামের দায়িত্বে ছিলেন পাকিস্তানের ব্যাটিং আইকন মোহাম্মদ রিজওয়ান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *